উপরের চিত্রটা ভালো করে লক্ষ্য করেন। ২০০৩ সাল থেকে আজকে আর্টিকেল লেখা পর্যন্ত EUR/USD এই বছরে মিনিমাম ১১৪৭ থেকে ম্যাক্সিমাম ৩৭০৮ পিপ্স একদিকে মুভ করেছে।

EUR/USD এর ২০০৩ সাল থেকে সর্বনিম্ন এক বছরে মুভ হওয়ার রেকর্ড আছে ১১৪৭ পিপ্স, ২০১৯ সালে এখন পর্যন্ত মুভ হয়েছে মাত্র ৪৬৩ পিপ্স আজকে পর্যন্ত।

তারমানে সর্বনিম্ন মুভ ও যদি হয় তবুই এখনো ৬৮৪ পিপ্স মুভ হওয়ার বাকী আছে ১১৪৭ পিপ্স একদিকে মুভ হতে।

আগামী বৃহস্পতিবার ECB এর মিটিং আছে। এবং এই বছর ফেড বেশ কয়েকবার রেট কাট করবে। জার্মানির রিপর্টগুলি স্পেশালী ইতালি, ফ্রান্স, জার্মানির ম্যানুফ্যাকচারিং রেকর্ড পরিমান খারাপ। চিন-আমেরিকার ট্যারিফ ইস্যু, ইরান নিয়ে আমেরিকার সাথে মন পার্থ্যক সামনে চলে এসছে ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের। অক্টোবর মাসে মারিও দ্রাঘির মেয়াদ শেষ হবে। এবং ৩১ শে অক্টোবর কথা রয়েছে ব্রেক্সিট হয়ে যাওয়ার।

সো এই ৬৮৪ পিপ্স মুভ মাস্ট হবে এবং এর বেশী হওয়ার বেশী এতগুলি ইস্যু সামনে রেখে। কোন দিকে হবে সেটা ডিপেন্ড করতেছে উপরের উল্লেখিত ব্যাপারগুলির উপর। বাট আমরা টেকনিক্যালি ট্রাই করবো মুভগুলি ধরতে।

EUR/USD যদি ১.১১০০ এরিয়ার নিচে চলে আসে আমরা অবশ্যই লং টার্মে সেল পজিশনে চলে যাব। ১ম টেক প্রফিট দিবো ১.০৮২০ এরিয়াতে। ১.০৮০০ এরিয়া ব্রেক আউট হলে ফাইনাল টার্গেট ১.০৩২০।

আর লং টার্ম বাই এর ক্ষেত্রে আমরা ১.১৫৬৯ এরিয়ার উপর স্ট্যাবল হলে বাই মোডে ঢুকব। যদিও বর্তমান পজিশন থেকে উইক্লি চার্টে ২০০ মুভিং এভারেজ এরিয়া আছে ১.১৬৫০ এরিয়াতে। কিন্তু সময়ের সাথে সাথে এটা ১.১৫৬০.৬৯ এরিয়াতেই নেমে আসবে। এবং ক্রিটিক্যাল রেসিস্টেন্স ক্রিয়েট করে ফেলবে। এই জন্য আমি ১.১৫৬৯ এরিইয়া ধরেছি।

সো ১.১৫৬৯ এরিয়া ব্রেক আউট হলে লং টার্ম বাই চলে যাবে EUR/USD ১ম টার্গেট ১.২০৮০ এরিয়াতে। এবং ১.২১০০ এরিয়ার উপর স্ট্যাবল হলে ফাইনাল টার্গেট ১.২৫৬৯ এরিয়া পর্যন্ত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here